সড়কের নাম চুরির পাঁয়তারার অভিযোগ

সড়কের নাম চুরির পাঁয়তারার অভিযোগ
সড়কের নাম চুরির পাঁয়তারার অভিযোগ
সড়কের নাম চুরির পাঁয়তারার অভিযোগ

চট্টগ্রাম অফিস: ইতিহাস পাশ কেটে চন্দনাইশ উপজেলার একটি সড়কের নাম চুরির লক্ষ্যে জেলা পরিষদের উন্নয়নকে ঢাল হিসেবে ব্যবহার করা হচ্ছে বলে অভিযোগ উঠেছে। এ নিয়ে সংশ্লিষ্টদের মধ্যে তীব্র অসন্তোষ দেখা দিয়েছে।

রমজান আলী চৌধুরী ঐতিহ্য রক্ষা পরিষদের মো. হারুনুর রশীদ, জাগির হোসেন চৌধুরী (ছুট্টু মিয়া) ও ওয়াহিদ হাসান জানিয়েছেন, ব্রিটিশ আমলে বৃহত্তর পটিয়ার (বর্তমানে চন্দনাইশ) পূর্ব কেশুয়ার বিশিষ্ট সমাজসেবক ছিলেন রমজান আলী চৌধুরী। দেশপ্রিয় যতীন্দ্র মোহন সেনগুপ্ত চানখালী নদীর বরকল ঘাট এলাকায় ‘টিনের ঘর’ নামে কেটি যাত্রীছাউনি নির্মাণ করেন। পরে সেখানে এবাদতখানা স্থাপন ও একটি হাট বসান রমজান আলী চৌধুরী। যা রমজান আলী চৌধুরী হাট (প্রকাশ টিনের হাট) হিসেবে এখনো পরিচিত।

তারা জানান, ১৯৬৫ সালে সৈয়দ সিরাজুল মোস্তাফা (একাত্তরে শহিদ) বরমা ইউনিয়নের চেয়ারম্যান থাকাকালীন ইউপি সভার কার্যবিবরণীতে লিখে রমজান আলী চৌধুরী সড়ক নামকরণ করেন। যেটি রমজান আলী চৌধুরী নিজ উদ্যোগে নিজের জায়গার ওপর তৈরি করেছিলেন। বর্তমানে ইতিহাস পাশ কেটে কিছু স্বার্থান্বেষী মহল জনৈক আবদুল মোনাফ চৌধুরী নাম দিয়ে সড়কটির উন্নয়নের জন্য প্রকল্প দাখিল করে এবং জেলা পরিষদ দরপত্রও আহ্বান করে। এ ঘটনায় সরকারের ভাবমূর্তি প্রশ্নের মুখে পড়ছে দাবি করে পরিষদের পক্ষ থেকে ইতিহাস বিকৃতির অপচেষ্টা রোধের জন্য স্থানীয় সংসদ সদস্য, জেলা পরিষদের প্রশাসকসহ সংশ্লিষ্টদের দৃষ্টি আকর্ষণ করছেন তারা।