চট্টগ্রামে প্রাণহীন হরতাল চলছে

চট্টগ্রামে  প্রাণহীন হরতাল চলছে
চট্টগ্রামে প্রাণহীন হরতাল চলছে

নিজস্ব প্রতিবেদক :

জামায়াতের আমির মতিউর রহমান নিজামীর মৃত্যুদণ্ডাদেশ সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগে বহাল রাখার প্রতিবাদে জামায়েতের ডাকা প্রাণহীন হরতাল চলছে চট্টগ্রামে। আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের কঠোর অবস্থানের কারণে হরতালের ঘোষণা দিয়েও মাঠে নেই দলটির কোনো স্তরের নেতাকর্মীরা। একেবারেই স্বাভাবিক রয়েছে বন্দর নগরীর জনজীবন ও ব্যবসা-বাণিজ্য। নগরীর প্রতিটি সড়কেই বাস, টেম্পু, সিএনজি অটোরিকশাসহ প্রায় সব ধরনের যানবাহন চলাচল ছিল স্বাভাবিক।

 রোববার সকাল থেকে নগরীর ব্যাস্ততম এলাকা নিউমার্কেট, দেওয়ানহাট, টাইগার পাশ, ওয়াসা মোড়, জিইসি মোড়, দুই নাম্বার গেইট, মুরাদপুর, বহদ্দারহাট, অক্সিজেন এলাকার জনজীবন পুরোপুরি স্বাভাবিক রয়েছে। তবে ব্যক্তিগত যানবাহন চলাচল কম দেখা গেছে।

 ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কসহ চট্টগ্রাম থেকে দূরপাল্লার সব যান চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। এছাড়া বিমান ও ট্রেন চলাচল স্বাভাবিক রয়েছে। দেশের ভোগ্যপণ্যের বৃহত্তম পাইকারি বাজার চাক্তাই-খাতুনগঞ্জের দোকান-পাট খোলা রয়েছে। নগরীর বিভিন্ন বিপনী বিতান, মার্কেটও খোলা রয়েছে। এছাড়া নগরীর মাঝিরঘাট, বাংলাবাজার এলাকায় কর্ণফুলী নদীর ঘাট এবং বিভিন্ন গুদামে ট্রাকে পণ্য বোঝাই চলছে। চট্টগ্রাম বন্দরের ভেতরে পণ্য উঠানামার কাজও স্বাভাবিক রয়েছে বলে জানিয়েছেন বন্দর সদস্য ও মুখপাত্র জাফর আলম।

 চট্টগ্রামের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (বিশেষ শাখা) আবদুল আওয়াল জানিয়েছেন, ‘হরতালে অপ্রীতিকর কোন কিছুর খবর পাওয়া যায়নি। মহাসড়কে অতিরিক্ত পুলিশ টহল দিচ্ছে। সব উপজেলায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন আছে।’

 বিজিবি চট্টগ্রাম অঞ্চলের অপারেশন অফিসার লে. কর্নেল এম নাসির উদ্দিন জানিয়েছেন, ‘ঢাকা-চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে যে কোনো ধরনের নাশকতা রোধে বিজিবি সদস্যরা টহলে আছে। নগরী ছাড়াও সীতাকুন্ড, বাঁশখালী, পটিয়া, লোহাগাড়া, হাটহাজারী ও ফটিকছড়িসহ চট্টগ্রামে ১৪ প্লাটুন বিজিবি সদস্য মোতায়ন রয়েছে। এছাড়া যে কোনো ধরনের পরিস্থিতিতে মোতায়েনের জন্য ‘কুইক রিয়েকশন ফোর্স (কিউআরএফ)’ প্রস্তুত রাখা হয়েছে।’

 নগর পুলিশের অতিরিক্ত কমিশনার (অপরাধ ও অভিযান) দেবদাস ভট্টাচার্য জানিয়েছেন হরতালে অপ্রীতিকর পরিস্থিতি মোকাবেলায় নগরীর কমপক্ষে ৮০টি পয়েন্টে প্রায় দুই হাজার পুলিশ মোতায়েন আছে।

 এদিকে হরতাল ডেকে মাঠে নাথাকলেও নগরীর দারুল ফজল মার্কেটস্থ চত্বর, অক্সিজেন মোড়, মুরাদপুর, কাঠগড়, আন্দরকিল্লা, কালামিয়া বাজার, এফ.আই.ডি.সি রোড সিএমপি চত্বর, চকবাজার, কাপ্তাই রাস্তার মাথা, বহদ্দারহাট, ইপিজেড মোড়, দেওয়ানহাট মোড়, বারেক বিল্ডিং মোড়, বড়পুল মোড়, ওয়াসার মোড়, বটতলীর মোড়, অলংকার চত্বর, বাদামতলী মোড়, বন্দরটিলা, কেইপিজেড, রেলক্রসিং, ফকিরহাট ও সিটি গেইট চত্বরসহ মোট ২৩টি পয়েন্টে যথারীতি মাঠে নেমেছে মুক্তিযুদ্ধের নেতৃত্বধানকারী দল বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা। এছাড়া কেন্দ্রিয়ভাবে নগরীর দারুল ফজল মার্কেটের সামনে সভাপতি এ বি এম মহিউদ্দিন চৌধুরী ও আ জ ম নাছির উদ্দিনের নেতৃত্বে হরতাল বিরোধী সমাবেশ করছে নগর আওয়ামী লীগ।