সোমবারের ধর্মঘট প্রত্যাখ্যান করেছে মালিক গ্রুপ

 

সোমবারের ধর্মঘট প্রত্যাখ্যান করেছে মালিক গ্রুপ
সোমবারের ধর্মঘট প্রত্যাখ্যান করেছে মালিক গ্রুপ

চট্টগ্রাম অফিস:

বৃহত্তর চট্টগ্রামের সকল রুটে আগামীকাল শ্রমিক ফেডারেশনের ডাকা ২৪ ঘণ্টার পরিবহন ধর্মঘট প্রত্যাখ্যান করে গাড়ি চালানোর ঘোষণা দিয়েছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপ।

 রোববার চট্টগ্রাম প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলন করে সোমবারের পরিবহন ধর্মঘটে নিজেদের মালিকানায় থাকা গাড়ি চালানোর ঘোষণা দিয়েছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপ।

 ছয় দফা দাবিতে সোমবার (৯ মে) বৃহত্তর চট্টগ্রামে ২৪ ঘণ্টার পরিবহন ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে পূর্বাঞ্চলীয় সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন।

 এসময় লিখিত বক্তব্যে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পরিবহন মালিক গ্রুপের মহাসচিব বেলায়েত হোসেন বেলাল বলেন, শ্রমিক ফেডারেশন তাদের নিজেদের স্টিকার দিয়ে অনিবন্ধিত সিএনজি অটোরিকশা চালানোর দাবিতে যে ধর্মঘট ডেকেছে, সেটা সম্পূর্ণ অযৌক্তিক ও অনৈতিক।

 সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ২০১৩ সালে চট্টগ্রামে চার হাজার সিএনজিচালিত অটোরিকশা নিবন্ধন দেওয়ার যে ঘোষণা দিয়েছিলেন, সেটাকে কেন্দ্র করে শ্রমিক ফেডারেশন ব্যাপক বাণিজ্য চালিয়ে যাচ্ছে বলে অভিযোগ বেলায়েত হোসেনের।

 “সরকার চাইলে চার হাজারের বেশি সিএনজি অটোরিকশার নিবন্ধন দিক আমাদের কোনো সমস্যা নাই। কিন্তু অনিবন্ধিত গাড়িগুলোকে স্টিকার দিয়ে চলাচলের অনুমতি দিলে সেটা আমরা মেনে নেব না।”

 হাইকোর্টের রিটের প্রেক্ষিতে অনিবন্ধিত সিএনজি অটোরিকশা চলাচলের অনুমতি না দেওয়ার প্রতিবাদে সড়ক পরিবহন শ্রমিক ফেডারেশন চট্টগ্রামে সোমবারের ধর্মঘটের ডাক দেয়।

 কিন্তু শ্রমিক ফেডারেশনের করা রিটে অনিবন্ধিত অটোরিকশা চলাচলে প্রশাসনকে হস্তক্ষেপ না করতে আদালত যে নির্দেশনা দিয়েছে তা মানতে নারাজ বেলায়েত হোসেন।

 তিনি বলেন, “একই বিষয়ে অনেকগুলো রিট নিষ্পত্তি হয়ে গেছে। একই ধরনের রিটে পুনরায় আদেশ নিয়ে রেজিস্ট্রেশনবিহীন সিএনজি অটোরিকশা চালানো যায় কিনা আমাদের বোধগম্য নয়।”

 এসব অনিবন্ধিত অটোরিকশা চলাচল বন্ধে প্রশাসন কোনো পদক্ষেপ না নিলে ১৯ মে মালিক গ্রুপ চট্টগ্রামে পরিবহন ধর্মঘট পালনের হুঁশিয়ারি দিয়েছে।

 সংবাদ সম্মেলনে আরো উপস্থিত ছিলেন মালিক গ্রুপের প্রধান উপদেষ্টা আমজাদ হোসেন হাজারী, মহানগর শ্রমিক নেতা নজরুল ইসলাম, আবদুল মান্নান, এসকে সিকদার, হায়দার আজম চৌধুরী, তরুণ কান্তি দাশ, জিয়াউদ্দিন শরিফ মিজান, আবদুল মতিন, গাজী জামাল উদ্দিন, দীলিপ চৌধুরী, রায়হানুল হক চৌধুরী, লেয়াকত আলী, স্বপন সিংহ, মো. জাকির প্রমুখ।