মর্নিংসান২৪ডটকম Date:২৪-০৬-২০১৮ Time:১১:৩১ পূর্বাহ্ণ


ক্রীড়া ডেস্ক :   সুইডেনের বিপক্ষে ম্যাচটি তাদের জন্য অনেকটাই বাঁচা-মরার। নকআউট পর্বে খেলতে হলে জিততেই হবে জার্মানিকে। রাশিয়া বিশ্বকাপে এই গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচে গতবারের চ্যাম্পিয়নরা শেষ মুহূর্তের গোলে নাটকীয় জয় পেয়েছে। তারা ২-১ গোলে জিতে জাগিয়ে রেখেছে নকআউট পর্বে খেলার আশা। সোচিতে অনুষ্ঠিত এ ম্যাচের প্রথমার্ধে অবশ্য বেশ নাকাল ছিল জার্মানি।

এক গোলে পিছিয়ে ছিল, হজম করতে পারতো আরো কয়েকটি গোল। ম্যাচের ৩২ মিনিটে প্রথমে পিছিয়ে পড়ে জার্মানি। পাল্টা আক্রমণ থেকে গোল করে সুইডেনকে এগিয়ে দেন ফরোয়ার্ড ওলা টোইভোনেন। মাঝমাঠ থেকে পাওয়া একটি বল নিয়ে বক্সে ঢুকে জার্মান গোলরক্ষকে পরাস্ত করেন তিনি, উল্লাসে মাতিয়ে তোলেন সুইডেন সমর্থকদের।

৪৪ মিনিটে ব্যবধান বাড়ানোর আরো একটি চমৎকার সুযোগ পেয়েছিল সুইডেন, কিন্তু কাজে লাগাতে পারেননি স্ট্রাইকাররা। প্রথমার্ধের ইনজুরি সময়ে গোলরক্ষকের দৃঢ়তায় আবার বেঁচে যায় জার্মানি। তা না হলে প্রথমার্ধে ব্যবধান আরো বড় হতে পারতো। দ্বিতীয়ার্ধে সমতায় ফিরতে মরিয়া হয়ে ওঠে জার্মানি। এর ফলও পায় তারা, ৪৮ মিনিটে মার্কো রিউসের গোলে ম্যাচের সমতায় ফিরে গতবারের চ্যাম্পিয়নরা। চার মিনিট পর এগিয়ে যাওয়ার দারুণ সুযেগ নষ্ট করে জার্মানি, জটলা থেকে জোনাস হেক্টরের শট সুইডেন গোলরক্ষক ধরে ফেলেন বল।

৬০ মিনিটে রিউস ম্যাচের সবচেয়ে সহজ সুযোগটি নষ্ট করেন। গোলরক্ষকের সামনে বলে পেয়েছিলেন, পা ছোঁয়ালেই গোল হতো, কিন্তু তিনি তা কাজে লাগাতে পারেননি। ৮২ মিনিটে জার্মানি দশজনের দলে পরিনত হয়, দুই হলুদ কার্ডের কারেণে লাল কার্ড পেয়ে মাঠ ছাড়েন ডিফেন্ডার জেরোমে বোয়াটেং। দলটি আরো বিপদে পড়ে যায়, তাই শেষ দিকে আরেকটি গোল হজম করতে বসেছিল তারা।

তবে ইনজুরি সময়ে ফ্রি-কিক থেকে একটি গোল করে নাটকীয়ভাবে ম্যাচে জয় তুলে নেয় জার্মানি। টনি ক্রুস চমৎকার গোলটি করে দলকে পরাজয়ের হাত থেকে রক্ষা করেন। অবশ্য ম্যাচের শুরু থেকেই বেশ আক্রমণাত্মক ফুটবল খেলতে থাকে জার্মানি। ৫ মিনিটের মধ্যেই দারুণ কয়েকটি সুযোগও তৈরি করে ফেলে তারা, কিন্তু তা কাজে লাগাতে পারেনি। তবে ম্যাচের ১৩ মিনিটে উল্টো গোল হজম করতে বসেছিল জার্মানি।

সুইডেন স্ট্রাইকার মার্কোস বার্গ বল নিয়ে জার্মানির সীমানায় ঢুকে পড়েন। অথচ জার্মান ডিফেন্ডার এ্যান্টনিও রুয়েডিগার তাঁকে ধাক্কা দিয়ে ফেলে দেন। রেফারি পেনাল্টির বাঁশি বাজাননি এবং রিভিউও নেননি। অবশ্য এদিন জার্মানি অন্তত ডজনখানেক গোলের সুযোগ হাতছাড়া করে। তা না হলে ব্যবধান আরো বড় হতে পারতো। এর আগে প্রথম ম্যাচে জার্মানি ১-০ গোলে হেরেছিল মেক্সিকোর কাছে। সুইডেন নিজেদের প্রথম ম্যাচে দক্ষিণ কোরিয়াকে হারিয়েছিল।
মর্নিংসান/এসএ