মর্নিংসান২৪ডটকম Date:২৭-০৬-২০১৮ Time:১১:৩৪ পূর্বাহ্ণ


নিউজ ডেস্ক  ::   গাজীপুর সিটি করপোরেশন প্রতিষ্ঠা হওয়ার পর অ্যাডভোকেট মো: জাহাঙ্গীর আলম হলেন মহানগরীর দ্বিতীয় নগরপিতা। গাজীপুর সিটিতে এবারই প্রথমবারের মতো দলীয় প্রতীকে ভোট দিলেন ভোটাররা। আর সেখানে জিতল নৌকা।

আওয়ামী লীগের প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম নৌকা প্রতীক নিয়ে চার লাখ ১০ ভোট পেয়ে জয়ী হয়েছেন। তাঁর নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী বিএনপির হাসান উদ্দিন সরকার ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে পেয়েছেন এক লাখ ৯৭ হাজার ৬১১ ভোট। মঙ্গলবার সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৪টা পর্যন্ত ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়।

‘আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি’ হওয়ায় নয়টি কেন্দ্রে ভোট গ্রহণ স্থগিত করা হয়। বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে এ কথা জানান গাজীপুর সিটি করপোরেশন নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা রকিব উদ্দিন মণ্ডল।

আজ বুধবার সকালে এ সিটির ৪২৫টির মধ্যে ৪১৬টি কেন্দ্রের ফল নিয়ে রিটার্নিং কর্মকর্তা রকিব উদ্দিন মণ্ডল জাহাঙ্গীর আলমকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করেন। বেলা ১১টায় সংবাদ সম্মেলন করে ফলাফলের বিস্তারিত তুলে ধরবেন রিটার্নিং কর্মকর্তা।

ওই সিটি এলাকায় ছয়টি কেন্দ্রে ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) ব্যবহার করা হয়। সবার আগে ইভিএমের ফলাফলই পেতে শুরু করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। মঙ্গলবার সকালে কানাইয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোট দেন আওয়ামী লীগের প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম।

এ সময় তিনি ‘জনগণের রায়কে’ মেনে নেবেন বলে জানিয়েছিলেন। একই সঙ্গে পরিকল্পিত ও বাসযোগ্য নগরী উপহার দেওয়ার প্রতিশ্রুতিও দেন তিনি। তবে শতাধিক কেন্দ্রে জাল ভোট, কেন্দ্র থেকে দলীয় এজেন্টদের বের করে দেওয়াসহ নানা অনিয়মের অভিযোগ করেন বিএনপির প্রার্থী হাসান উদ্দিন সরকার।

তিনি নির্বাচন বন্ধ করে দেওয়ার দাবিও জানিয়েছিলেন। তবে নির্বাচন কমিশন যদি ভোট বন্ধ না করে, তাহলে শেষ পর্যন্ত নির্বাচনে থাকার অঙ্গীকারও করেছিলেন হাসান সরকার। তবে ভোট গ্রহণ শেষ হওয়ার পর নির্বাচন কমিশনের সচিব হেলালুদ্দীন আহমদ জানান, স্থগিত হওয়া নয়টি কেন্দ্র বাদে বাকি ৪১৬টি কেন্দ্রে ‘অবাধ, সুষ্ঠু এবং নিরপেক্ষভাবে ভোট গ্রহণ’ হয়েছে।

এর আগে ২০১৩ সালে এ সিটি করপোরেশনের প্রথম নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। ওই নির্বাচনে মেয়র পদে বিপুল ভোটের ব্যবধানে বিএনপি মনোনীত প্রার্থী অধ্যাপক এম এ মান্নান নির্বাচিত হন। কারাগারে প্রায় সময় বন্দি ছিলেন মান্নান।
মর্নিংসান/এসএ