মর্নিংসান২৪ডটকম Date:১০-০৭-২০১৮ Time:১২:২৬ অপরাহ্ণ


নিউজ ডেস্ক  ::   হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে বিপুল পরিমাণ আমদানি নিয়ন্ত্রিত বিদেশি ওষুধ আটক করেছে শুল্ক গোয়েন্দা। যার বাজারমুল্য প্রায় দুই কোটি টাকা। সোমবার বিকেল সাড়ে পাঁচটায় শাহজালালে অভিযান চালিয়ে এক যাত্রীর কাছ থেকে আমদানি নিয়ন্ত্রিত এ ওষুধ আটক করা হয়। আজ(মঙ্গলবার) গণমাধ্যমকে এ তথ্য জানায় শুল্ক গোয়েন্দা বিভাগ।

শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত অধিদপ্তরের মহাপরিচালক (ডিজি) ড. মো. সহিদুল ইসলাম জানান, আটক ওষুধগুলো হচ্ছে xenical 8400 pcs, Mixtard 30-3130 pcs, Sandimmun 4500 pcs, Imuran 11275 pcs, Clomid 6000 pcs, Leukeran 5000 pcs, Konakion 5500 pcs. সর্বমোট ৭ ধরনের ৪৩,৮০৫ পিস ওষুধ। এসব ওষুধ ব্লাড ক্যান্সার, ডায়াবেটিকস্ ও স্লিম হওয়ার কাজে ব্যবহৃত হয়।

তিনি জানান, লাবন্য ইসলাম নামে এক যাত্রীর কাছ থেকে এ সব ওষুধ উদ্ধার করা হয়।। লাবন্য মিশর থেকে Ek 586 ফ্লাইটে দুবাই হয়ে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে আনুমানিক বিকেল সাড়ে পাঁচটায় টায় অবতরণ করেন। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে শুল্ক গোয়েন্দারা ব্যাগেজ বেল্টসহ গ্রিন চ্যানেলে বিশেষ নজরদারি বজায় রাখে।

যাত্রী ৪নং বেল্ট থেকে লাগেজ সংগ্রহ করে স্ক্যানিং ফাঁকি দিয়ে গ্রিন চ্যানেল দ্রুত অতিক্রম করে চলে যাবার সময় তার গতিরোধ করা হয় এবং পরবর্তীতে কাস্টমস হলে বিভিন্ন সংস্থার উপস্থিতিতে তার সাথে থাকা ৪ টি লাগেজ খুলে বিদেশি ওষুধগুলো আটক করা হয়।

আমদানি নীতি আদেশ অনুযায়ী ওষুধ শিল্প প্রশাসনের অনুমতি ব্যতিরেকে বিদেশি ওষুধ আমদানি করা যায়না। সংশ্লিষ্ট সকলের উপস্থিতিতে সন্ধ্যা সাতটায় এসব পণ্য ইনভেন্টরি করা হয়।

আটককৃত ওষুধের আনুমানিক বাজারমুল্য দুই কোটি টাকা। তিনি জানান, সমস্ত কার্যক্রম শেষে যাত্রীর পাসপোর্ট আটক করে আজ (১০ জুলাই) ইনভেন্টরিকৃত ওষুধ কাস্টমস গোডাউনে জমা করে এ বিষয়ে শুল্ক আইনে ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে।
মর্নিংসান/এসএ