যাকে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন দেওয়া হবে, তার পক্ষে আমাদের সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করতে হবেঃ নওফেল

চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশন নির্বাচনের আগে দলের নেতাকর্মীদের ঐক্যবদ্ধ থাকার আহ্বান জানিয়েছেন আওয়ামী লীগের দুই নেতা আ জ ম নাছির উদ্দীন এবং মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল।

শনিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) নগরের জামালখানের একটি কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত চট্টগ্রাম নগর আওয়ামী লীগের বর্ধিত সভায় তারা এ আহ্বান জানান।

 

আত্মঘাতী কর্মকাণ্ড থেকে দলের নেতাকর্মীদের বিরত থাকার আহ্বান জানিয়ে নগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ও সিটি মেয়র আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, পরস্পর পরস্পরকে হেয় করার অপচেষ্টা বন্ধ করতে হবে। নিজেদের মধ্যে এসব বন্ধ করতে না পারলে ক্ষতি হবে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকারের।

 

আ জ ম নাছির উদ্দীন বলেন, আমাদের মধ্যে মতের ভিন্নতা থাকতে পারে। তবে দলীয় সংহতি রক্ষায় সবাইকে আপন করে নিতে হবে। তৃণমূল থেকেই যারা পরীক্ষিত তাদের সামনের কাতারে নিয়ে আসতে হবে। নগর কমিটির কার্যকরী সদস্য ও শিক্ষা উপমন্ত্রী ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল বলেন, চট্টগ্রাম নগর আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক ভিত্তি দেশ ও জাতিকে সামনের দিকে নিয়ে যাওয়ার একটি আদর্শিক শক্তি ও ভিত্তি।

 

তিনি বলেন, চট্টগ্রাম সিটি করপোরেশনের মেয়র হিসেবে যাকে নৌকা প্রতীকের মনোনয়ন দেওয়া হবে, তার পক্ষে আমাদের সবাইকে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করে যেতে হবে। আমাদের ঐক্যের শক্তিকে কাজে লাগিয়ে নৌকা প্রতীকের প্রার্থীকে জয়ী করতে হবে।

 

সংসদ সদস্য মোছলেম উদ্দীন আহমেদ বলেন, নগরের ৫টি ওয়ার্ডে আমাকে জয়ী করতে যেসব নেতা-কর্মী নিবেদিতপ্রাণ ছিলেন আমি তাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানাই। নগর আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা যেভাবে কাজ করেছেন তা দলের সাংগঠনিক ভিত্তিকে অবশ্যই মজবুত করবে।

 

সভাপতির বক্তব্যে নগর আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মাহতাব উদ্দিন চৌধুরী বলেন, কেন্দ্রের নির্দেশনা অনুযায়ী আমাদের সকল সাংগঠনিক সিদ্ধান্ত পরিচালিত হচ্ছে। সরকারের সব শুভ উদ্যোগ বাস্তবায়নের মাধ্যমেই বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার বাংলা বাস্তবায়নে দলীয় নেতাকর্মীদের প্রচেষ্টা চালাতে হবে।

 

নগর আওয়ামী লীগের প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক শফিকুল ইসলাম ফারুকের সঞ্চালনায় বর্ধিত সভায় উপস্থিত ছিলেন সহ-সভাপতি নঈম উদ্দিন চৌধুরী, সুনীল কুমার সরকার, ইব্রাহিম হোসেন চৌধুরী বাবুল, খোরশেদ আলম সুজন, এম. জহিরুল আলম দোভাষ, আলতাফ হোসেন চৌধুরী বাচ্চু।

 

অংশ নেন, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক এম. রেজাউল করিম চৌধুরী, এমএ রশীদ, কোষাধ্যক্ষ আবদুচ ছালাম, উপদেষ্টা শফর আলী, শেখ মোহাম্মদ ইসহাক, সাংগঠনিক সম্পাদক নোমান আল মাহমুদ, শফিক আদনান, চৌধুরী হাসান মাহমুদ হাসনী, সম্পাদক মন্ডলীর সদস্য হাসান মো. শমসের, শেখ ইফতেখার সায়মুল চৌধুরী, চন্দন ধর, মশিউর রহমান চৌধুরী প্রমুখ।

 

সভায় নগর আওয়ামী লীগের স্বাস্থ্য ও জনসংখ্যা বিষয়ক সম্পাদক এবং বিএমএ চট্টগ্রামের সাধারণ সম্পাদক ডা. ফয়সাল ইকবাল চৌধুরীর মা খোরশেদা বেগমের মৃত্যুতে গভীর শোক প্রকাশ করা হয়। সংসদ সদস্য ডা. আফসারুল আমীনের রোগমুক্তি কামনা করে দোয়া করা হয়।