খাবারের স্বাদ বুঝতে: খাবারে চামচ দিয়ে নয় হাত দিয়েই খাওয়া উচিৎ

Playing food by hand with no spoon matches more taste, like the expert

বোধহয় চেটেপুটে খাওয়ার দিন প্রায় শেষ। আধুনিকতার ছোঁয়ায় হাত দিয়ে খাবার খাওয়ার রীতি উঠে গেছে বলা চলে। কাঁটা চামচ, ছুরি এখন খাবারের টেবিলের নিত্যদিনের সঙ্গী।

বিভিন্ন অনুষ্ঠানে হাত দিয়ে কেউ খেতে শুরু করলে ‘এডিকেট ম্যানার’ নিয়ে প্রশ্ন ওঠে। বিরিয়ানি হোক বা টিক্কা, সব খাবারেই চামচ গেঁথে খান অনেকেই। আধুনিক যুগের এই ম্যানার শেখান বাচ্চাদের।

তবে বিশেষজ্ঞদের মত, খাবারের স্বাদ বুঝতে খাবারে চামচ দিয়ে নয় হাত দিয়েই খাওয়া উচিৎ। তবেই বোঝা যাবে খাবারের আসল স্বাদ।

যুক্তরাষ্ট্রের স্টিভেন ইনস্টিটিউট অব টেকনোলজির গবেষক আদরিয়ানা মাডজারোভ জানান, যারা নিজ হাতে প্রতিদিন খাবার খান তারা অন্যান্য মানুষের তুলনায় খাবারের স্বাদ অনেক ভালো বোঝেন।

এমনকি তারা ভালোবেসেই খাবার খান। দীর্ঘদিন তাদের ভালোবাসা থাকে খাবারের প্রতি। প্রথমে প্রায় ৪৫ জন স্কুল পড়ুয়াকে নিয়ে একটি গবেষণা করেন গবেষক।

শিক্ষার্থীদের একটি চিজ কিউব দিয়ে খাদ্যাভ্যাস সম্পর্কে জানার চেষ্টা করেন গবেষক আদরিয়ানা মাডজারোভ। দেখা যায়, একদল পড়ুয়া একটি কাঠি দিয়ে চিজ কিউবটি খায় বাকিরা হাত দিয়েই চিজ কিউবটি মুখে পুরে দেয়।

পরবর্তীতে একইভাবে ১৪৫ জন কলেজ পড়ুয়াদের নিয়ে আরেকটি গবেষণা করেন তিনি। সেখানে তাদের দুটি দলে ভাগ করা হয়। একদলকে জানানো হয় তাদের খাদ্যাভ্যাসে পরিবর্তন আনতে তাদের এমনভাবে খেতে হবে যা তাদের সুস্থ রাখবে।

অন্যদলকে বলা হয় কোনও রকম চিন্তা না করে ভালোবেসে খেতে হবে খাবার। দেখা যায় সমীক্ষার প্রথম দলটি খেতে বসে চামচ দিয়ে খুব সাবধানে খাবার খাচ্ছে।

আর বাকিরা চামচ ব্যবহার না করেই খাবার খাচ্ছে হাত দিয়ে। এমনকি তারা মজা পাচ্ছে খাবারটি খাওয়ার সময়।

বিশেষজ্ঞদের দাবি, যে কোনও খাবারেরই একটা খাদ্যগুণ, নতুনত্ববোধ ও পুষ্টিগুণ থাকে। যিনি খাচ্ছেন তিনি সেই খাবারটি ছুঁয়ে না দেখলে সেই খাবার সম্পর্কে তার আগ্রহ তৈরি হয় না।

ফলে দীর্ঘদিন হাত দিয়ে না খাওয়ার ফলে খাবারের প্রতি ধীরে ধীরে আগ্রহ হারিয়ে ফেলতে পারেন। তাই খাদ্যপ্রমী হয়ে থাকতে গেলে বা খাবারের পুষ্টিগুণ বজায় রাখতে খাবার খেতে হবে হাত দিয়ে।

প্রয়োজনে খাবারের ষোলোআনা স্বাদ পেতে আঙুল চেটে খাওয়া উচিৎ।