বিশ্বখ্যাতনামা ফুটবলার রোনালদোর প্রেমে বিচ্ছেদ

24b9c_50533ক্রীড়া প্রতিবেদক: বিচ্ছেদের অনলে পুড়ছেন রোনালদো। ভেঙে দিয়েছেন ৫ বছরের প্রেম। তারকাদের বেলায় এমন খবর মোটেও কৌতূহল জাগায় না। তবে রোনালদো যেখানে ৫ বছর থিতু হয়ে ছিলেন, সেখান থেকে চলে আসলে একটু জানতে ইচ্ছেই হয়-কেন রুশ বান্ধবীর সঙ্গে বিচ্ছেদ হল তার? এই প্রশ্নের উত্তর খোঁজার চেষ্টা করেছে বেশ কয়েকটি আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম। পর্তুগালের কয়েকটি অনলাইন সংবাদপত্র ঘেঁটে বিচ্ছেদের পেছনে দুটি সম্ভাবনা পাওয়া গেছে। দেশটির শীর্ষস্থানীয় পত্রিকা কোরিও ডি মানহানা বলছে, রোনালদোর মায়ের ৬০তম জন্মদিনে হাজির হতে অসম্মতি জানানোর কারণে ইরিনার সঙ্গ ত্যাগ করেছেন বিশ্বসেরা এই খেলোয়াড়। সূত্রের খবর, রোনালদো তার মায়ের জন্মদিনে ইরিনাকে নিয়ে একটা সারপ্রাইজ দিতে চেয়েছিলেন। কিন্তু ‘কোনো কারণে’ ইরিনা জন্মদিনে উপস্থিত হতে চাননি। এই ‘কোনো কারণ’কে আবার কেউ কেউ বলছেন, রোনালদোর মায়ের সঙ্গ ইরিনার সম্পর্ক অতটা ভালো না। তবে ইরিনার এজেন্ট এমন দাবিকে অস্বীকার করেছেন। তিনি বলছেন, ‘রোনালদোর পরিবারের সঙ্গে ইরিনার সম্পর্কটা মোটেও খারাপ নয়। বিচ্ছেদের ব্যাপারটা তাদের ব্যক্তিগত সিদ্ধান্ত।’ বিচ্ছেদের পর ইরিনা টুইটারে রোনালদোকে অনফলো করেছেন। এ খবর ছড়িয়ে পড়ার পরেই মূলত তাদের ছাড়াছাড়ির বিষয়টি গণমাধ্যমে আসে। পর্তুগালের আরেকটি পত্রিকায় খবর এসেছে, বেশ কয়েক মাস ধরে রোনালদোর ছেলের সঙ্গে ইরিনা ভালো ব্যবহার করছিলেন না। এটা একদমই পছন্দ হচ্ছিল না সিআর সেভেনের। উল্লেখ্য, রোনালদোর চার বছর বয়সী এই ছেলের মা কে, তা নিয়ে যথেষ্ট জল্পনা-কল্পনা রয়েছে। রোনালদোর মা এ বিষয়ে প্রায়ই বলে থাকেন, তিনি টাকা দিয়ে অন্য এক মহিলার কাছ থেকে তার নাতিকে কিনে এনেছিলেন। অন্যদিকে গুজব আছে, রোনালদোর সাবেক এক প্রেমিকার গর্ভের সন্তান এই ছেলে। রোনালদো নিজের ইচ্ছায় তাকে কাছে রেখে দিয়েছেন।